সোমবার   ১৫ জুলাই ২০২৪   আষাঢ় ৩০ ১৪৩১   ০৭ মুহররম ১৪৪৬

 কুষ্টিয়ার  বার্তা
সর্বশেষ:
দেশের চার বিভাগে ভারী বর্ষণের আভাস জাতীয় রপ্তানি ট্রফি পেল ৭৭ প্রতিষ্ঠান ব্যবসা-বাণিজ্য যাতে সহজ হয় সর্বদা সেই কাজই করছি: প্রধানমন্ত্রী দেশের অর্থনৈতিক উন্নয়নে রপ্তানি বাণিজ্য প্রসারের বিকল্প নেই দেশে কোনো মানুষ অতিদরিদ্র থাকবে না: শেখ হাসিনা
৭০

ভালোবাসা শেখানোর মানুষটির পরিচয় ফাঁস করলেন মিম

প্রকাশিত: ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২৩  

দেড় দশক আগে কুমিল্লার এক কলেজপড়ুয়া তরুণী ‘লাক্স চ্যানেল আই সুপারস্টার’ প্রতিযোগিতায় নাম লেখান। নানা ধাপ পেরিয়ে ২০০৭ সালের সেই আসরে শেষ পর্যন্ত চ্যাম্পিয়ন হন ওই তরুণী। এরপর বিনোদন অঙ্গনে তার পথচলা শুরু। 

একে একে সিনেমা, নাটক, বিজ্ঞাপনচিত্র, ওয়েব সিরিজ- সব মাধ্যমে কাজ করেছেন। তিনি জনপ্রিয় মডেল ও অভিনেত্রী বিদ্যা সিনহা মিম।

এক সময় তাকে ঘিরে ডালপালা মেলতে থাকে প্রেম-ভালোবাসার নানা গুঞ্জন। তবে মিম মন দিয়ে বসেছিলেন একজন ব্যাংকারকে। এসবের এক ফাঁকে জানালেন- তার জীবনে সত্যিকারের ভালোবাসা শেখানোর মানুষটা কে।

‘পরাণ’ ছবিতে অভিনয় নৈপুণ্যের কারণে কদিন আগে অনুষ্ঠিত মেরিল-প্রথম আলো তারকা জরিপ ২০২২ আসরে চলচ্চিত্র বিভাগে সেরা নায়িকার পুরস্কার জিতেছেন তিনি। 

এখন ব্যাংককে বেশ ফুরফুরে মেজাজে সময় কাটাচ্ছেন। মিমের ফেসবুক চেকইন থেকে জানা যাচ্ছে, তিনি এখন আছেন ব্যাংককে। ব্যাংকার স্বামী সনি পোদ্দারকে নিয়ে সেখানে মনের আনন্দে ঘুরে বেড়াচ্ছেন।

একটা সময় সব গুঞ্জন উড়িয়ে দিয়ে ব্যাংকার সনি পোদ্দারকে নিজের জীবনচলার পথের সঙ্গী হিসেবে নিয়েছিলেন। এ সিদ্ধান্তে তিনি ভুল করেননি।

মিম বলেন, মানুষটি তাকে সত্যিকারের ভালোবাসা কী, তা শিখিয়েছেন। উপলব্ধি করিয়েছেন। সেই মানুষটির সঙ্গে পার হতে চলেছে বিবাহিত জীবনের দুটি বছর।

ভালোবাসার মানুষটিকে নিয়ে মিম এখন আছেন ব্যাংককে। এবার সেখানে যাওয়ার উদ্দেশ্য, তার এ ভালোবাসার মানুষের জন্মদিন উদযাপন। এ উপলক্ষে কয়েকটা দিন নিজেদের মতো করে বেড়ানো। এ সময়ে স্বামীর প্রতি ভালোবাসা ও কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন এই অভিনেত্রী। 

সনি পোদ্দারকে উদ্দেশ করে মিম বলেন, জন্মদিনের শুভেচ্ছা সেই মানুষটাকে, যে আমাকে শিখিয়েছে সত্যিকারের ভালোবাসা আসলে কী। তুমি আমার সত্যিকারের সেই মানুষ, যাকে আমি সব সময় মনে মনে চেয়েছি। সৃষ্টিকর্তা সব সময় তোমাকে হাসিমুখে রাখুক। অনেক ভালোবাসা।

সম্প্রতি মিম নতুন একটি ছবির কাজ শেষ করেছেন। ‘দিগন্তে ফুলের আগুন’ নামের এই চলচ্চিত্রে মিম অভিনয় করেছেন লেখক, গবেষক, শিশুসংগঠক ও সাবেক সংসদ সদস্য পান্না কায়সারের চরিত্রে। আর এই ছবিতে তার স্বামী শহীদ বুদ্ধিজীবী শহীদুল্লা কায়সারের চরিত্রে অভিনয় করেছেন মোস্তফা মন্ওয়ার। ছবিটির পরিচালক ওয়াহিদ তারেক।

২০২১ সালের ১০ নভেম্বর সনি পোদ্দারের সঙ্গে আংটিবদলের কথা নিশ্চিত করেন মিম। নিজের জন্মদিনে ঢাকার একটি পাঁচ তারকা হোটেলে সন্ধ্যায় দুই পরিবারের উপস্থিতিতে বাগ্দান সম্পন্ন হয়। সেই সময় তিনি জানিয়েছিলেন, ছয় বছর ধরে তাদের প্রেমের সম্পর্ক। একটা সময় দুই পরিবারের সদস্যদের তাদের সম্পর্কের কথা জানানো হয়। 

দুই পরিবারই শুরু থেকে ইতিবাচক ছিল। সবাই মিলে সিদ্ধান্ত নেন। পরিবারের সিদ্ধান্তেই তারা দুজন বাগ্দান সেরে নেন। পরে ২০২২ সালের জানুয়ারি মাসে ঢাকার একটি পাঁচ তারকা হোটেলে মিমের বিয়ের আনুষ্ঠানিকতা সম্পন্ন হয়। এতে মিম ও তার বর সনি পোদ্দারের ঘনিষ্ঠজনরা উপস্থিত ছিলেন।

 কুষ্টিয়ার  বার্তা
 কুষ্টিয়ার  বার্তা