রোববার   ২৩ জুন ২০২৪   আষাঢ় ৯ ১৪৩১   ১৬ জ্বিলহজ্জ ১৪৪৫

 কুষ্টিয়ার  বার্তা
সর্বশেষ:
খালেদা জিয়ার হৃদযন্ত্রে পেস মেকার বসানোর কাজ চলছে: আইনমন্ত্রী পুলিশের এক অতিরিক্ত আইজিপি ও ৯ ডিআইজিকে বদলি-পদায়ন
১১৫

গুহার এক কিলোমিটার গভীরে নেমে অসুস্থ, ৯ দিন পর উদ্ধার

প্রকাশিত: ১৩ সেপ্টেম্বর ২০২৩  

তুরস্কের তৃতীয় গভীরতম গুহা মোকা। এর গভীরতা ১ হাজার ২৭৬ মিটার। একটি মানচিত্র তৈরির লক্ষ্যে গুহায় নেমেছিলেন মার্কিন গবেষক মার্ক ডিকি (৪০)। তবে গুহার এক কিলোমিটারের বেশি গভীরে গিয়ে অসুস্থ হন তিনি। এ ঘটনার ৯ দিন পর মঙ্গলবার  স্থানীয় সময় দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে তাকে গুহা থেকে উদ্ধার করা হয়েছে।

মঙ্গলবার ওই গবেষককে যখন গুহা থেকে উদ্ধার করা হয়, তখন তুরস্ক এবং সমগ্র ইউরোপ থেকে উদ্ধারকারীরা উল্লাস করছিল ও করতালি দিচ্ছিল। 

গুহা থেকে উদ্ধার হওয়ার পর একটি ভিডিও বার্তা দেন ডিকি। তাকে উদ্ধারে সাহায্য করার জন্য তুরস্কের সরকারের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন। ডিকি বলেন, আমি আটকা পড়ার পর দ্রুত সরকারের পক্ষ থেকে পাঠানো ওষুধ ও চিকিৎসাসামগ্রীই আমার প্রাণ বাঁচিয়েছে।

গত ২ সেপ্টেম্বর পেটে রক্তক্ষরণে অসুস্থ হয়ে পড়েন ডিকি। কী কারণে এ অবস্থা তা স্পষ্ট বোঝা যায়নি। উদ্ধারের পরে সাংবাদিকদের ঘেরা একটি স্ট্রেচারে শুয়ে তিনি নয়দিনের অগ্নিপরীক্ষাকে একটি ‘খামখেয়ালি অভিযান’ হিসেবে অভিহিত করেছেন।

গুহার ভেতরে ডিকির চিকিৎসা করা প্রথম ব্যক্তিদের মধ্যে ছিলেন ডা. জসোফিয়া জাডোর। তিনি  হাঙ্গেরিয়ান উদ্ধারকারী দলের চিকিৎসা সম্পর্কিত উদ্ধারকারী।

এছাড়াও বুলগেরিয়া, ক্রোয়েশিয়া, হাঙ্গেরি, ইতালি, পোল্যান্ড এবং তুরস্কের প্রায় ১৯০ জন বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক, প্যারামেডিক এবং গুহা বিষয়ক অভিজ্ঞরা উদ্ধার কাজে অংশ নিয়েছিলেন। একজন চিকিৎসক এবং অন্য তিন থেকে চারজন উদ্ধারকারীর সমন্বয়ের গঠিত দলগুলো সব সময় তার পাশে ছিল।

 কুষ্টিয়ার  বার্তা
 কুষ্টিয়ার  বার্তা
এই বিভাগের আরো খবর